fbpx
Thursday, April 25, 2024
spot_imgspot_img
HomeTechComputerদামে কম মানে ভালো Gigabyte DD5 RAM

দামে কম মানে ভালো Gigabyte DD5 RAM

Gigabyte AORUS DDR5 RAM 32GB 5200MHz

এতদিন Gigabyte পারসোনাল কম্পিউটারের মাদারবোর্ডের জন্য জনপ্রিয় নাম হলেও বর্তমানে তারা অন্যান্য পিসি কম্পোনেন্ট তৈরিতে মনোযোগ দিয়েছে। তেমনি DDR5 র‌্যাম তৈরি করছে Gigabyte।
AORUS সিরিজের গেমিং র‌্যাম নিয়ে থাকছে আজকের আলোচনা।

প্রথমেই দেখে নেই এর স্পেসিফিকেশন

Gigabyte AORUS DDR5 RAM 32GB 5200MHz
Gigabyte AORUS DDR5 RAM 32GB 5200MHz
  • Memory Type: DDR5 UDIMM
  • Capacity: 32GB kit (2x16GB)
  • Multi-Channel Kit: Dual Channel Kit
  • SPD Latency: 40-40-40-77
  • SPD Speed: 4800MHz
  • SPD Voltage: 1.1V
  • Tested Latency: 40-40-40-80
  • Tested Speed: 5200MHz (XMP)
  • Performance Profile : XMP 3.0
  • Tested Voltage: 1.25V
  • Heatspreader Color: AORUS Gray
  • Package Memory Pin: 288
  • Performance Profile: XMP 3.0
  • Warranty: Limited Lifetime
  • মূল্য: 15500 টাকা

AORUS নামটি গিগাবাইট মূলত গেমিং সিরিজের জন্য ব্যবহার করে থাকে। আর গেমিং যে কোন কম্পোনেন্ট সাধারণের থেকে একটু মজবুত ও উন্নত মানের হয়ে থাকে। গিগাবািইটের এ র‌্যাম কিট (একসাথে ২টি র‌্যামের প্যাকেজ) প্রথম দর্শনেই বেশ মজবুত ও প্রিমিয়াম বলে মনে হবে।

তাহলে জেনে নেই এর বিশেষ বৈশিষ্টগুলোর বিস্তারিত

গিগাবাইট দাবি করছে ন্যানোকার্বন হিট স্প্রেডারের সাথে কপার-অ্যালুমিনিয়াম কম্পোজিট ব্যবহার করায় ওভারক্লকিং করা যাবে। ওভারক্লকিং এর সময় তাপমাত্রা বেড়ে যায়। তাই এর কপার-অ্যালুমিনিয়াম কম্পোজিট তাপকে গ্রহন করে ছড়িয়ে দেয়, আর এতে সাহায্য করে ন্যানো কার্বন আবরণ। এ কারণে র‌্যামের তাপমাত্রা ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে রাখতে সক্ষম।

এটি Intel Z690 সার্টিফাইড। তাই Intel Z690 সমর্থিত চিপসেটের মাদারবোর্ডে র‌্যামগুলোর সাথে খুব ভালো চলবে। সাধারণ অবস্থায় ইন্টেলের 12th Generation প্রসেসরগুলো 4800 MHz র‌্যাম সাপোর্ট  করলেও এ র‌্যাম বুস্টিং মোডে 5200MHz পর্যন্ত উঠতে পারে। তাই গতির দিক থেকে এ র‌্যাম বেশ এগিয়েই থাকবে। আর তাই বেশি FPS এর গেমারদের পছন্দের তালিকায় থাকে ওভারক্লকেবল র‌্যামগুলো। 

DDR4 মডিউলের তুলনায় DDR5 এর কর্মক্ষমতা বেশি কারণ এর ভালো ব্যান্ডউইথ। তাছাড়া গিগাবাইট বলছে পাওয়ার খরচ DDR4 এর তুলনায় কম।

তাছাড়া গিগাবাইটের দাবি DDR5 মডিউলগুলোতে বিল্ট ইন পাওয়ার ম্যানেজমেন্ট ইন্টিগ্রেটেড সার্কিট (PMIC) আছে। যা ওভারক্লকিং এর সময় DDR5 ভোল্টেজ নিয়ন্ত্রণ করে এর ক্ষমতাকে আরো বাড়িয়ে তোলে। আর মাল্টিলেয়ার পিসিবি র‌্যামের সবধরণের কর্মক্ষমতা স্থিতিশীল রাখতে সহায়তা করে।

AORUS DDR5 মেমরি মডিউল সর্বশেষ XMP 3.0 স্পেসিফিকেশন সমর্থন করে। ওভারক্লকিং এর সময় XMP বিভিন্ন প্রোফাইলে সংরক্ষণ করে প্রয়োজনমত ব্যবহার করা যায়।

এতক্ষণ অনেক কঠিন কঠিন কথা হল, এখন সহজ কথায়… 

কেনো কিনবো:

  • নতুন প্রযুক্তি
  • গতি বেশি
  • মজবুত
  • বুস্ট করা যায় (এক্স এম পি ৩.০)
  • ২মিলিমিটার হিট সিংক

কেনো কিনবো না

  • দাম অনেক বেশি DDR4-এর তুলনায়
  • DDR4-এর তুলনায় গতি খুব বেশি না
  •  RGB  নেই 

তাহলে আপনারাই সিদ্ধান্ত নিন এ র‌্যাম আপনার জন্য কতটুটু প্রয়োজন। এর ব্যাপারে আরো জানার থাকলে কমেন্ট করুন।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments

Elliana Murray on ONLINE SHOPPING
Discover phone number owner on Fake app চেনার উপায়